ভারতে প্রথম এক আদিবাসী নারীর উপাচার্য হওয়ার খবরটি পুরোনো

বুম বাংলাদেশ দেখেছে, অধ্যাপক সোনাঝরিয়া মিনজ্ ভারতের সিধো-কানহো মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হওয়ার খবরটি ২০২০ সালের।

ভারতে প্রথম আদিবাসী নারী হিসেবে অধ্যাপক সোনাঝরিয়া মিনজে্র ভারতের ঝাড়খণ্ডের সিধো-কানহো মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য নিযুক্ত হওয়া সংক্রান্ত খবরের লিংক সম্প্রতি সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকের বিভিন্ন পেজ ও আইডি থেকে পোস্ট করা হচ্ছে। এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে এবং এখানে

গত ৫ আগস্ট 'সময়ের খবর' নামের একটি ফেসবুক পেজ থেকে অখ্যাত একটি অনলাইন পোর্টালের খবরের লিংক পোস্ট করে লেখা হয়, "ক্লাসে তাচ্ছিল্যের শিকার হওয়া সেই ছাত্রী এখন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি!"

পোস্টটি দেখুন এখানে

হুবহু একই শিরোনামে খবরটির বিস্তারিত অংশে লেখে হয়েছে,

"ভারতের ঝাড়খণ্ডের সিধো কানু মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি হিসেবে নিযু'ক্ত হয়েছেন নয়াদিল্লির জহরলাল নেহরু ইউনিভার্সিটির (জেএনইউ) প্রফেসর সোনাঝরিয়া মিনজ। স্বাধীন ভারতে এই প্রথম কোনো আদিবাসী মহিলার ভিসি হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার ইতিহাস রচিত হল দেশে। জানা গেছে, ঝাড়খণ্ডের রাজ্যপাল দ্রৌপদী মুর্মু নিজেও একজন আদিবাসী সমাজের প্রতিনিধি। তিনিই সোনাঝরিয়াকে নিয়োগ করেন এই পদে। সোনাঝরিয়া মিনজ জেএনইউ এর স্কুল অফ কম্পিউটার এবং সিস্টেমস সায়েন্সের প্রফেসর ছিলেন। সোনাঝরিয়া মিনজের এই কৃতিত্বে খুশি গোটা ঝাড়খণ্ড। বৃহস্পতিবার (২৮ মে) দিল্লি থেকে ঝাড়খণ্ড পৌঁছান অধ্যাপক মিনজ। দায়িত্ব নেন ভিসি হিসেবে।" দেখুন সেই পোস্টের স্ক্রিনশট--

খবরটি দেখুন এখানে

খবরটির ডেটলাইনে প্রকাশের তারিখ '৫ আগস্ট, ২০২১' এবং বিবরণে ' বৃহস্পতিবার (২৮ মে)' উল্লেখ করা হয়েছে। অর্থাৎ ফেসবুক ও অনলাইন পোর্টালে খবরটি প্রকাশের ডেটলাইন দেখে মনে হচ্ছে ঘটনাটি সাম্প্রতিক।

ফ্যাক্ট চেক:

বুম বাংলাদেশ যাচাই করে দেখেছে, অধ্যাপক সোনাঝরিয়া মিনজ্ ভারতের ঝাড়খণ্ড রাজ্যের সিধো-কানহো মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হিসেবে নিযুক্ত হওয়ার খবরটি পুরোনো। ভারতের একাধিক গনমাধ্যমে খবরটি ২০২০ সালে প্রকাশিত হয়েছে। তন্মধ্যে "''তোমার দ্বারা হবে না'', এই মন্তব্য এসেছে শিক্ষকদের থেকেই" শিরোনামে ২০২০ সালের ২ জুন ভারতীয় প্রভাবশালী বাংলা দৈনিক আনন্দবাজার পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে খবরটি প্রকাশিত হয়। খবরটিতে বলা হয়,

"বৃহস্পতিবার ২৮ মে, ২০২০। স্বাধীন ভারতে এক নতুন ইতিহাস সূচিত হল। জাতি, বর্ণের বেড়া ভেঙে স্বাধীন ভারতে এই প্রথম কোনও আদিবাসী মহিলা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য পদে দায়িত্বভার গ্রহণ করলেন। ঝাড়খণ্ডের সিধো-কানহো মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হিসেবে নিযুক্ত হলেন জেএনইউয়ের অধ্যাপক সোনাঝরিয়া মিনজ।" খবরটির স্ক্রিনশট দেখুন--

খবরটি দেখুন এখানে

আনন্দবাজার পত্রিকার খবর অনুযায়ী তিনি নিয়োগপ্রাপ্ত হয়েছেন ২০২০ সালের ২৮ মে। নিয়োগ পাওয়ার পরদিন অর্থাৎ ২০২০ সালের ২৯ মে 'স্বাধীন ভারতের প্রথম আদিবাসী মহিলা উপাচার্য, সেলাম সোনাঝরিয়া মিনজ!' শিরোনামে ভারতের আরেকটি বাংলা সংবাদমাধ্যম 'NEWS18 বাংলা'ও খবরটি প্রকাশ করে। দেখুন এখানে

এছাড়া তৎকালে ভারতের প্রভাবশালী ইংরেজি দৈনিক THE HINDU পত্রিকার অনলাইন ভার্সনে প্রকাশিত খবরটির স্ক্রিনশট দেখুন--

প্রতিবেদনটি দেখুন এখানে

অতএব ২০২০ সালে অধ্যাপক সোনাঝরিয়া মিনজে্র ভারতের ঝাড়খণ্ড রাজ্যের সিধো-কানহো মুর্মু বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য নিযুক্ত হওয়ার এক বছরেরও বেশি পুরোনো একটি খবরকে নতুন করে প্রকাশ করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

Claim Review :   ক্লাসে তাচ্ছিল্যের শিকার হওয়া সেই ছাত্রী এখন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি!
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story