বিভ্রান্তিকর শিরোনামে টাঙ্গাইলে বাল্যবিবাহের পুরনো খবর নতুনভাবে প্রচার

সখীপুরে দশম শ্রেণীর ছাত্রের সাথে নবম শ্রেণীর ছাত্রীর বিয়ের ঘটনাটি মূলত মে মাসের, এবং ফেসবুকে ছড়ানো ছবিটিও তাদের নয়।

সামাজিক মাধ্যমে 'নবম শ্রেণির ছা'ত্রীর স'ঙ্গে দশম শ্রেণির ছা'ত্রের প্রে'ম পরে বি'য়ে অ'তঃপর বা'সর ঘরে পা'ত্রীর কা'ন্ড!' শিরোনামে একটি সংবাদ শেয়ার হতে দেখা যায়। সংবাদের সাথে একটি ছবিও সংযুক্ত আছে যা দেখে ধারণা হয় ছবিটিও ওই ছাত্র-ছাত্রীর। দেখুন এখানেএখানে

আর্কাইভ করা আছে এখানে

ফ্যাক্ট চেক:
সার্চ করে দেখা যায়, এই সংবাদটি ২০২০ সালের মে মাসের। সেসময় বর টাঙ্গাইলের সখীপুরে পার্কি মনির উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ শ্রেণির ছাত্র আর কনে একই প্রতিষ্ঠানের নবম শ্রেণির ছাত্রীর মধ্যে এ বাল্যবিয়ে সম্পন্ন হয়। বিয়ের রেজিস্ট্রি না হলেও স্থানীয় মসজিদের মুয়াজ্জিন হাফেজ শামসুল হক এ বিয়ে পড়ান। এ সংক্রান্ত মূলধারার সংবাদ দেখুন
এখানে
এখানে

অন্যদিকে, অনলাইন পোর্টাল ও ফেসবুকে সংবাদটির সাথে ব্যবহৃত ছবিটিও খবরের পাত্র-পাত্রীর নয়। রিভার্স ইমেজ অনুসন্ধানে এই ছবিটি ইউটিউবের একটি ভিডিও থেকে নেওয়া যেখানে দুই কিশোর-কিশোরীকে নাচতে দেখা যায়। ভিডিওটি ২০১৮ সালের ২৭ আগস্ট ইউটিউবে আপলোড করা হয়।
সুতরাং, পুরনো সংবাদকে নতুন করে ভিন্ন ছবি দিয়ে প্রকাশ করা বিভ্রান্তিকর।
Claim Review :   নবম শ্রেণির ছা’ত্রীর স’ঙ্গে দশম শ্রেণির ছা’ত্রের প্রে’ম পরে বি’য়ে অ’তঃপর বা’সর ঘরে পা’ত্রীর কা’ন্ড!
Claimed By :  নিউজ আউটলেটস
Fact Check :  Misleading
Show Full Article
Next Story