স্কুল-কলেজ খোলার তারিখ নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য প্রচার

করোনা পরবর্তী স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার ব্যাপারে একটি সরকারি ঘোষণা নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য প্রচার করা হয়েছে ফেসবুকে

ফেসবুকে একটি ভিডিওতে দাবি করা হয়েছে, আগামি ৬ ফেব্রুয়ারি খুলছে স্কুল-কলেজ। এই তথ্যটি "ব্রেকিং নিউজ" আকারে প্রচার করা হয়েছে। দেখুন লিংক এখানে, এখানে এবং এখানে

Education & Environment নামের পেইজ থেকে ২৩ জানুয়ারি ৩ মিনিটের একটি ভিডিও পোস্ট করা হয় যার শিরোনাম, "৬ ফেব্রুয়ারি খুলছে স্কুল-কলেজ ! ৩ ফুট দুরুত্বে বসা ও স্কুলে একাধিক টয়লেট নির্মাণ করাসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের মানতে হবে ৯টি জরুরি নির্দেশনা"। দেখুন ভিডিওটির একটি স্ক্রিনশট--


ফ্যাক্ট চেক:

বুম বাংলাদেশ ভিডিওটি যাচাই করে দেখেছে, ৬ এপ্রিল স্কুল-কলেজ খুলে যাওয়ার দাবিটি বিভ্রান্তিকর। এমন কোনো নিশ্চিত তথ্য এখনও সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়নি।

অন্যদিকে ক্যাপশনে এবং ভিডিও থাম্বনেইল ছবিতে ৬ এপ্রিল স্কুল -কলেজ খুলে যাবে বলে 'নিশ্চিত তথ্য' প্রচার করা হলেও ভিডিওটির ভেতরে এ ব্যাপারে কোনো নিশ্চিত তথ্য দেয়া হয়নি।

ভিডিওটির ৩ মিনিট ৭ সেকেন্ড থেকে বলা হয়, "আগামি ৪ ফেব্রুয়ারির মধ্যে প্রতিষ্ঠানগুলো এই গাইডলাইন মেনে স্বাস্থ্য নিরাপত্তার বিষয়টি নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে। সবকিছু ঠিক থাকলে ৬ ফেব্রুয়ারি শনিবার থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ক্লাশ শুরু হতে পারে"

অর্থাৎ ভিডিওটিতেই বলা হচ্ছে, ৬ তারিখে শিক্ষা-প্রতিষ্ঠান খোলার দাবিটি নিছক অনুমান। কিন্তু ক্যাপশন এবং থাম্বনেইল ছবিতে নিশ্চিত তথ্য হিসেবে এবং "ব্রেকিং নিউজ" আকারে প্রচার করা হয়েছে। এতে যারা পুরো ভিডিও শুনবেন না তারা বিভ্রান্ত হওয়ার শঙ্কা রয়েছে।

২৩ জানুয়ারি প্রকাশিত প্রথম আলোর একটি প্রতিবেদনে দেখা যায়, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সৈয়দ গোলাম ফারুক জানান, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার সুনির্দিষ্ট দিনক্ষণ ঠিক হয়নি। তবে তাঁরা প্রস্তুতি নিয়ে রাখছেন। সরকার যখন বলবে, তখন খোলা হবে। দেখুন সেই পত্রিকার স্ক্রিনশট--

প্রথম আলোর প্রতিবেদনটি দেখুন এই লিংকে


Claim Review :   ৬ ফেব্রুয়ারি খুলছে স্কুল-কলেজ
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story