কুষ্টিয়ার এসপির নামে ভুয়া নাচের ভিডিও প্রচার

পানীয় হাতে নিয়ে খোলামেলা শরীরে এক ব্যক্তির নাচের ভিডিওটি এর আগেও ভিন্ন ভিন্ন ব্যক্তির নামে ছড়ানো হয়েছিল।

সামাজিক মাধ্যমে একটি ভিডিও ছড়িয়েছে যেটিকে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম তানভীর আরাফাতের বলে দাবি করা হচ্ছে। ভাইরাল ভিডিওতে দেখা যায়, কেবল অন্তর্বাস পরিহিত এক ব্যক্তি পানীয় সদৃশ কিছু ভর্তি গ্লাস হাতে নিয়ে নাচছেন এবং সেখানে তার সাথে এক নারীকেও নাচতে দেখা যায়। একটি ফেসবুক পোস্টে ভিডিওটির ক্যাপশনে লেখা রয়েছে- ''দেখেন কুষ্টিয়ার এসপি সাহেব কি করতেছে নাউযুবিল্লাহ নাউযুবিল্লাহ।'' আর ভিডিওর সাথে সংযুক্ত টেক্সটে লেখা রয়েছে- ''মদ খা মানুষ হ।''


আর্কাইভ দেখুন এখানে। আরও পোস্ট দেখুন এখানে এখানে

ফ্যাক্ট চেক:

ফেসবুকে ভিডিওটি ভাইরাল হওয়ার পর বুম বাংলাদেশের কাছে অনেকে ভিডিওটির সত্যতা সম্পর্কে জানতে চান। খোঁজ নিয়ে দেয়া যায়, এই একই ভিডিও এর আগেও ফেসবুকে বাংলাদেশ প্রতিদিন পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক পীর হাবিবুর রহমানের নাচের ভিডিও হিসেবে ছড়ানো হয়। ২০১৯ সালের অক্টোবরে "হোটেলে সাংবাদিক পীর হাবিবুর রহমানের উলঙ্গ নাচের ভিডিও" শিরোনামে বিভিন্ন ফেসবুক পেজ ও গ্রুপে ছড়িয়ে পড়ে।

সেসময় বাংলাদেশের ফ্যাক্ট চেকিং প্রতিষ্ঠান 'বিডি ফ্যাক্টচেক' ভিডিওটি পীর হাবিবুর রহমানের কি না সে ব্যাপারে ফ্যাক্ট চেক করে।

এ নিয়ে বাংলাদেশ প্রতিদিন ও সময় টিভি অনলাইনের প্রতিবেদন দেখুন এখানেএখানে

প্রকুতপক্ষে ভিডিও ক্লিপটির ব্যক্তির সাথে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপারের চেহারা আকৃতিগত কিছু মিল থাকলেও অমিলই বেশি।

তাছাড়া বিডি ফ্যাক্টচেক সেসময় অনুসন্ধান করে মূল ভিডিওটি Dhakad News নামক একটি ইউটিউব চ্যানেলে পায় যা ২০১৯ সালের অক্টোবরের ২ তারিখ প্রকাশিত হয়। ভিডিওটির শিরোনাম ছিল- "Bangkok Enjoy #dirtydancing #Bangkok Funny Dance video in Bangkok"

ভারতীয় ইউটিউব চ্যানেলে যে ভিডিও আপলোড করা হয়েছে সেটি বাংলাদেশে ছড়ানো ভিডিওর চেয়ে কিছুটা বেশি রেজুলেশনের। ফলে সেটিতে চেহারা কিছুটা স্পষ্টভাবে দেখা যায়। দেখুন সেই ভিডিও থেকে বিডি ফ্যাক্টচেক'র নেয়া স্ক্রিনশট--


এখানে দেখা যাওয়া চেহারা আর সাথে এসপি তানভীরের চেহারা এক নয়।

ভারতীয় চ্যানেলটি সেই সেই লিঙ্কে ক্লিক করলে আর ভিডিওটি পাওয়া যায় না। সেখানে লেখা রয়েছে- ''Video unavailable. This video is no longer available because the YouTube account associated with this video has been terminated.''

ভাইরাল হওয়া ভিডিও গত বছর ভারতীয় একটি ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করা হলেও এটিতে দেখা যাওয়া ব্যক্তিটির পরিচয় সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে এটা যে এসপি তানভীরের নয় তা স্পষ্ট।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি কুষ্টিয়ায় বিপ্লবী বাঘা যতীনের ভাস্কর্য ভাঙচুরের ঘটনায় কুমারখালীতে গত সোমবার এক প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয় এবং এতে বক্তব্য দেন কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম তানভীর আরাফাত। তিনি বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের সংবিধান নিয়ে যাঁরা প্রশ্ন তুলতে চান, তাঁদের জন্য তিনটি অপশন বা বিকল্প প্রস্তাব দেন। তিনি বলেন, 'এক, উল্টাপাল্টা করবা হাত ভেঙে দেব, জেল খাটতে হবে। দুই, একেবারে চুপ করে থাকবেন, দেশের স্বাধীনতা ও বঙ্গবন্ধুর ইতিহাস নিয়ে কোনো প্রশ্ন করতে পারবেন না। তিন, আপনার যদি বাংলাদেশ পছন্দ না হয়, তাহলে ইউ আর ওয়েলকাম টু গো ইউর প্যায়ারা পাকিস্তান।' দেখুন এখানে

তার এই বক্তব্যের প্রতিবাদে হেফাজতে ইসলাম এক বিবৃতি দিয়ে পুলিশ সুপারের বরখাস্ত দাবি করে। দেখুন এখানেএখানে


Claim Review :   দেখেন কুষ্টিয়ার এসপি সাহেব কি করতেছে নাউযুবিল্লাহ নাউযুবিল্লাহ
Claimed By :  Facebook posts
Fact Check :  False
Show Full Article
Next Story