নেপালের ভূমিকম্পের পুরোনো ভিডিও ভুয়া দাবিতে প্রচার

বুম বাংলাদেশ দেখেছে, ভিডিওটি ২০১৫ সালের ২৫ এপ্রিল নেপালের রাজধানীর ভদ্রাকালী গেটের সামনে সিসি ক্যামেরায় ধারণ করা।

সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে সম্প্রতি একটি পোস্ট করে দাবি করা হচ্ছে, ভিডিওটি আজ (২৬ নভেম্বর) ভূমিকম্প চলাকালে মিয়ানমারের একটি সিসিটিভির ভিডিও। এমন কিছু পোস্ট দেখুন এখানে, এখানে, এবং এখানে

গত ৬ নভেম্বর 'Chattogram Tribune' নামের ফেসবুক পেজ থেকে একটি ভিডিও শেয়ার করা করে লিকেজ হয়, "মায়ানমারের ভূমিকম্পে কাঁপল চট্টগ্রামও এটি মায়ানমারের একটি সিসিটিভি ভিডিও। মায়ানমারের ভূমিকম্পে কাঁপল চট্টগ্রামও"। ভিডিওটিতে শক্তিশালী ভূমিকম্পে কাঁপাকাঁপি দৃশ্য দেখা যায়। ওই পোস্টের স্ক্রিনশট দেখুন--

পোস্টটি দেখুন এখানে

ফ্যাক্ট চেক:

বুম বাংলাদেশ যাচাই করে দেখেছে, ভাইরাল দাবিটি বিভ্রান্তিকর। প্রথমত, ঘটনাটি মিয়ানমারের নয় বরং নেপালের। দ্বিতীয়ত, সাম্প্রতিক ভূমিকম্পের সাথেও এর সম্পর্ক নেই। মূলত ২০১৫ সালে নেপালে ঘটা শক্তিশালী ভূমিকম্পের সিসিটিভির ফুটেজ এটি।

উল্লেখ্য, আজ ২৬ নভেম্বর ( শুক্রবার) রাজধানী ঢাকা, চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় ভোর ৫টা ৪৫ মিনিটে ৫ দশমিক ৮ মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত হয়। এ সংক্রন্ত খবর দেখুন এখানে

ভাইরাল ভিডিওটি থেকে ইনভিডের সাহায্যে কি-ফ্রেম কেটে রিভার্স ইমেজ সার্চ করলে, 'Rajesh Subba' নামে একটি ইউটিউব চ্যানেলে ভাইরাল ভিডিওর পুরোনো ভার্সন খুঁজে পাওয়া যায়, যা ২০১৬ সালের ২০ অক্টোবর আপলোড করা হয়। তবে এই ভিডিওর বর্ণনায় কোন বিস্তারিত তথ্য দেয়া হয়নি। ভিডিওটি দেখুন--

এর সূত্র ধরে সার্চ করে, ভাইরাল ভিডিওটির অনুরূপ আরও অনেক ভিডিও খুঁজে পাওয়া যায়। তন্মধ্যে, "Nepal earthquake CCTV footage Bhadrakali Gate Kathmandu 25 April 2015" শিরোনামে "WildFilmsIndia" নামের ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করা ভিডিওটি অন্যতম। ২০২০ সালের ২৮ এপ্রিল আপলোড করা ভিডিওটির বর্ণনায় বলা হয়, এটি ২০১৫ সালের ২৫ এপ্রিল নেপালে শক্তিশালী ভূমিকম্পের সময়ে রাজধানী কাঠমান্ডুর ভদ্রাকালী গেটের সামনের রাস্তার সিসিটিভি ফুটেজ। দেখুন--

জায়গাটি সম্পর্কে নিশ্চিত হতে বুম বাংলাদেশ গুগল ম্যাপে অনুসন্ধান করলে কাঠমান্ডুর ভদ্রাকালী মন্দির গেটের সামনে স্থাপনার সাথে ভাইরাল ভিডিওতে দেখা স্থাপনার মিল খুঁজে পায়। গুগল ম্যাপের লোকেশন দেখুন। অর্থাৎ ভিডিওটি নেপালেরই, মিয়ানমারের নয়। গুগল ম্যাপের ছবি ও ভূমিকম্পের ভিডিও থেকে নেয়া স্ক্রিনশটের তুলনামূলক সাদৃশ্য দেখুন--

ভূমিকম্পের ভিডিও ফুটেজের ( বামে) এবং গুগল ম্যাপের (ডানে) পাশাপাশি স্ক্রিনশট

প্রসঙ্গত ২০১৫ সালে হিমালয় কন্যা নেপালের অনেক এলাকায় শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হানে। রিখটার স্কেলে ওই ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৭ দশমিক ৮ এবং ৮০ বছরের বেশি সময়ের মধ্যে নেপালের ইতিহাসে সবচেয়ে ভয়াবহ ভূমিকম্প ছিল সেটি। এ সংক্রান্ত আরও খবর দেখুন এখানে

অর্থাৎ ২০১৫ সালে নেপালে আঘাত হানা ভূমিকম্পের ভিডিও পোস্ট করে মিয়ানমারে আজ ২৬ নভেম্বর ঘটা ভূমিকম্পের বলে প্রচার করা হচ্ছে, যা বিভ্রান্তিকর।

Claim :   মায়ানমারের ভূমিকম্পে কাঁপল চট্টগ্রামও এটি মায়ানমারের একটি সিসিটিভি ভিডিও
Claimed By :  Facebook post
Fact Check :  Misleading
Show Full Article
Next Story
Our website is made possible by displaying online advertisements to our visitors.
Please consider supporting us by disabling your ad blocker. Please reload after ad blocker is disabled.