ভিডিওটি যুক্তরাষ্ট্রের প্যাটারসন শহরের পুলিশ প্রধানের শপথ অনুষ্ঠানের

বুম বাংলাদেশ দেখেছে, ২০২০ সালের ওই ভিডিওকে যুক্তরাষ্ট্রের মুসলিম সেনাপ্রধানের বলে প্রচার করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

সামাজিক মাধ্যম ফেসবুকে একটি ভিডিও দিয়ে দাবি করা হচ্ছে, মার্কিন সেনাপ্রধানের কোরআন হাতে শপথ গ্রহণের ভিডিও এটি। দেখুন এমন কিছু ভিডিও লিংক এখানে, এখানে, এখানে এবং এখানে

গত ৪ জুলাই '🇧🇩 GREENLAND BANGLADESH 🇧🇩' নামের একটি ফেসবুক গ্রুপে ভিডিওটি পোস্ট করে বলা হয়, নতুন মার্কিন সেনাপ্রধান বাইবেল হাতে শপথ নিতে অস্বীকৃতি জানিয়ে কুরআন হাতে শপথ নেন। ভিডিওটিতে ইউনিফর্ম পরিহিত এক ব্যক্তিকে শপথ নিতে দেখা যায়। দেখুন স্ক্রিনশট--


পোস্টটির আর্কাইভ দেখুন এখানে

ফ্যাক্ট চেক

বুম বাংলাদেশ যাচাই করে দেখেছে, দাবিটি বিভ্রান্তিকর। ভিডিওটিতে শপথ নেয়া ব্যক্তিটি যুক্তরাষ্ট্রের নতুন কিংবা সাবেক কোনো সেনাপ্রধান নন। গুগল সার্চ করে দেখা গেছে, এটি মূলত যুক্তরাষ্ট্রের নিউ জার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন শহরের পুলিশ বিভাগের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পাওয়া এক ব্যক্তির শপথ গ্রহণের ভিডিও। তুরস্কভিত্তিক একটি সংবাদমাধ্যমের ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করা আলোচ্য ভিডিওটির দীর্ঘতর ভার্সন দেখুন--

ভিডিওটির শিরোনামে বলা হয়, 'আহমেদ মাইক বায়কোরা' নামের তুরস্ক বংশোদ্ভূত যুক্তরাষ্ট্রের এক মুসলিম পুলিশ কর্মকর্তা শপথ গ্রহণ করছেন। ভিডিওটির বর্ণনায় বলা হয়, আহমেদ মাইক বায়কোরা ২০২০ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে যুক্তরাষ্ট্রের নিউ জার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন শহরের পুলিশ প্রধান হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করেছেন। দায়িত্ব গ্রহণ ও শপথ অনুষ্ঠানের ভিডিও এটি, যেখানে তিনি কুরআন হাতে শপথ নেন।

এ ব্যাপারে বিস্তারিত সার্চ করে তুরস্কের মূলধারার একাধিক গণমাধ্যমে আহমেদ বায়কোরার দায়িত্ব পাওয়া সংক্রান্ত প্রতিবেদন পাওয়া যায়। দেখুন ২০২০ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি ডেইলি সাবাহ'তে প্রকাশিত এ সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন--


ডেইলি সাবাহ এর প্রতিবেদনটি দেখুন এখানে

উক্ত প্রতিবেদনে বলা হয়, দীর্ঘ ৩০ বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্রের পুলিশ বিভাগে কাজ করছেন, আহমেদ। এছাড়া, তিনি প্রথম তুরস্ক বংশোদ্ভূত ব্যক্তি হিসেবে ওই শহরের পুলিশ প্রধানের দায়িত্ব নিয়েছেন।

তৎকালে নিউ জার্সি অঙ্গরাজ্যের প্যাটারসন শহরের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমেও সেই খবরটি ছবিসহ প্রকাশিত হয়েছিল। দেখুন এমন একটি খবরের স্ক্রিনশট--


প্রতিবেদনটি দেখুন এখানে

তাছাড়া ফেসবুক পোস্টটিতে করা দাবি অনুযায়ী, ভিডিওতে প্রদর্শিত ব্যক্তিটির বাইবেলে হাত রেখে শপথ নিতে অস্বীকৃতি জানানো সংক্রান্ত কোন তথ্য এসব প্রতিবেদনে পাওয়া যায়নি।

অর্থাৎ ২০২০ সালে একজন মুসলিম ব্যক্তির যুক্তরাষ্ট্রে একটি শহরের পুলিশ প্রধান হিসেবে শপথ নেয়ার ভিডিওকে, মার্কিন সেনাপ্রধানের বলে দাবি করা হচ্ছে; যা বিভ্রান্তিকর।

Claim Review :   নতুন মার্কিন সেনা প্রধান বাইবেল নিয়ে শপথ করতে অস্বীকার করেন তারপর ✅ পবিত্র কুরআন মাজিদ নিয়ে শপথ গ্রহণ করেন।
Claimed By :  Facebook Posts
Fact Check :  Misleading
Show Full Article
Next Story